1. kabir28journal@yahoo.com : Abubakar Siddik : Abubakar Siddik
  2. kabir.news@gmail.com : Kabir :
রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ০৮:১৯ পূর্বাহ্ন

বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বুকে ধারণ করতে শিক্ষার্থীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. মশিউর রহমান।

সাংবাদিকের নাম:
  • আপডেট টাইম: সোমবার, ২৮ আগস্ট, ২০২৩
  • ২৭ ০০০ জন পড়েছে।

জনজীবন ডেস্ক—-মবার (২৮ আগস্ট) রাজধানীর আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে স্বাস্থ্য সুরক্ষা ফাউন্ডেশন আয়োজিত জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা ও দোয়া অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। আলোচনা সভায় রাজধানীর বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে স্বাস্থ্য সুরক্ষা ফাউন্ডেশন নিয়ে কাজ করা সহস্রাধিক কিশোর ও কিশোরী শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে।

এসময় শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে মশিউর রহমান বলেন, বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে বুকে ধারণ করে পঁচাত্তরের খুনিদের ঘৃণা করবে। তোমার হৃদয়ে থাকবে বঙ্গবন্ধু, মুক্তিযুদ্ধ ও বাংলাদেশ। তোমরা শিক্ষার আলোয় ও সুস্বাস্থ্যে বিকশিত হবে। সুস্থ সংস্কৃতি চর্চা করবে। অন্যের ধর্ম ও মতের প্রতি শ্রদ্ধা রাখবে। এসো নিজ হাতে এই সুন্দর দেশমাতৃকাকে সাজিয়ে তুলি। আমাদের আগামীর পথ চলা অনিন্দ্য সুন্দরে ভরে উঠুক। তোমাদের জীবন সাফল্যগাঁথায় ভরে উঠুক— এই প্রত্যাশা রইল।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু শুধু বাঙালির অধিকারের জায়গায় থেমে থাকেননি। তিনি বলেছেন, পৃথিবী আজ দু’ভাগে বিভক্ত— শোষক আর শোষিত। আমি শোষিতের পক্ষে। তিনি বিশ্বের সকল শোষিতের পক্ষে দাঁড়ালেন। একটি নতুন অর্থনৈতিক ব্যবস্থা গড়ে তোলার উদ্যোগ নিলেন। সেটির নাম দিলেন শোষিতের গণতন্ত্র তথা দ্বিতীয় বিপ্লব।

বঙ্গবন্ধুর দ্বিতীয় বিপ্লব সফল হলে বাংলাদেশ অনেক শক্তিশালী রাষ্ট্রকে ছাড়িয়ে যেত উল্লেখ করে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য বলেন, বঙ্গবন্ধু ঘোষিত দ্বিতীয় বিপ্লব যদি সেদিন সফল হত তাহলে আজকে শুধু তোমাদের স্বাস্থ্য সুরক্ষা নয়, বাংলাদেশ ৫০ বছরের যাত্রায় পৃথিবীর অনেক শক্তিশালী এবং মানবিক রাষ্ট্রকে ছাড়িয়ে অনন্যসাধারণ হয়ে উঠত। সে কারণেই বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হয়েছে। কেননা তিনি যে দ্বিতীয় বিপ্লবের কথা ভাবছিলেন, সেই বিপ্লব বিশ্বের একটি নতুন অর্থনৈতিক ও সামাজিক মুক্তির মডেলে পরিণত হত। আমরা সেখান থেকে বঞ্চিত হয়েছি।

আলোচনা সভায় ও দোয়া মাহফিলে প্রধান অতিথি ছিলেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। এছাড়া আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন আওয়ামী লীগের আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ড. শাম্মী আহমেদ, আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক মো. আমিনুল ইসলাম। এতে সভাপতিত্ব করেন স্বাস্থ্য সুরক্ষা ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা অধ্যাপক ড. মো. হাবিবে মিল্লাত।

 

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ধরনের আরো সংবাদ